উন্নয়নের পক্ষে ভোট দিতে চায় তাহেরপুরবাসী

উন্নয়নের পক্ষে ভোট দিতে চায় তাহেরপুরবাসী

তাহেরপুর

মোঃ আঃ আলিম সরদার,নিজেস্ব প্রতিবেদকঃ

চতুর্থ ধাপের ১৪ জানুয়ারী রাজশাহীর বাগমারা উপজেলার তাহেরপুর পৌরসভার নির্বাচন অনুষ্ঠিত হতে যাচ্ছে। বড় দুইদল আওয়ামী লীগের দলীয় মনোনয়ন নৌকার প্রার্থী হিসেবে নির্বাচনে অংশ গ্রহন করছেন দু দুবারের সফল মেয়র অধ্যক্ষ আবুল কালাম আজাদ। আর বিএনপির ধানের শীষের প্রার্থী হয়েছেন সাবেক মেয়র আবু নঈম শামসুর রহমান। প্রতিক বরাদ্দের পর থেকেই আওয়ামী লীগ ঐক্যবদ্ধ হয়ে মাঠ দখলে রেখেছে নৌকার প্রার্থী অধ্যক্ষ আবুল কালাম আজাদের সমর্থকরা।

ঐক্যবদ্ধ হয়ে নির্বাচনী মাঠ দাপিয়ে বেড়াচ্ছে আ’লীগের নেতাকর্মীরা। নামতে পারছেন না বিএনপির প্রার্থী ধানের শীষে আবু নঈম শামসুর রহমান ও তার সমর্থকরা। আওয়ামী লীগ সমান তালে নৌকার প্রতিকের নির্বাচনী প্রচারনা চালিয়ে গেলেও বিএনপির মাইকিং ছাড়া কোন নেতাকর্মীরা দেখা যাচ্ছে না।

বিএনপির কর্মীদের সংঘবদ্ধ করতে পারছেনা দলের নেতারা। মেয়রদের পাশাপাশি সাধারন কাউন্সিলর ও সংরক্ষিত নারী কাউন্সিলরেরা পিছিয়ে নেই। নির্বাচনী মাঠ গরম করতে মাইকিং সহ সমর্থিত প্রার্থীদের পক্ষে সংঘবদ্ধ ভাবে নির্বাচনী প্রচারনা চালিয়ে যাচ্ছেন তারা। শীতকে উপেক্ষা করে নির্বাচনী মাঠ সরাগম করেছেন প্রার্থীরা।তাহেরপুর পৌর নির্বাচনে আ’লীগ মনোনীত নৌকার প্রার্থী অধ্যক্ষ আবুল কালাম আজাদ ফুরফুরে মেজাজে নির্বাচনী প্রচারনা চালাতে পারলেও বিএনপি’র মনোনীত প্রার্থী আবু নঈম শামসুর রহমান মিন্টু তা পারছেন না।

দলীয় নেতাকর্মীদের সংঘবদ্ধ করতে না পারায় বিএনপির প্রার্থীর বড় ধরনের ধাক্কা বলে মনে করছেন মাঠ নেতাকর্মীরা।তাহেরপুর পৌরসভার ৩ নং ওয়ার্ডের আনছার আলী নামের এক সাধারণ ভোর বলেন, তাহেরপুর পৌরসভায় মেয়র আবুল কালাম আজাদের বিকল্প নেই। প্রথম নির্বাচনে তিনি আওয়ামী লীগের বিদ্রোহী প্রার্থী হিসেবে অংশ গ্রহন করে জয়লাভ করেন।

তখন থেকেই তিনি তাহেরপুরবাসীর সমস্ত উন্নয়নের দাবি পূরণ করে আসছেন।তিনি বলেন, দ্বিতীয় বার মেয়র নির্বাচিত হওয়ার পর অধ্যক্ষ আবুল কালাম আজাদ তাহেরপুর পৌরসভাকে একটি মডেল পৌরসভা হিসেবে তৈরী করেন। এবারো তিনি ১৯ দফা কর্মসূচি নিয়ে নির্বাচনী মাঠে প্রচারনা চালিয়ে যাচ্ছেন। তাই এবার আমরা উন্নয়ন দেখে ভোট দিতে চাই। তাহেরপুর পৌরসভায় ১৪ হাজার ৬১৯ জন ভোটার রয়েছেন। নয়টি কেন্দ্রে তারা ভোটাধিকার প্রয়োগ করবেন।

মন্তব্য করুনঃ

আপনার মন্তব্য করুন :