রাজশাহীতে তরমুজের বাজারে সিন্ডিকেটের থাবা

রাজশাহীতে তরমুজের বাজারে সিন্ডিকেটের থাবা

রাজশাহী

স্টাফ রিপোর্টারঃ

তরমুজের জন্য বিখ্যাত বরিশাল অঞ্ছল। এর বাইরে বিক্ষিপ্তিভাবে দেশের বিভিন্ন স্থানেও তরমুজ চাষ হয়। এবারও তাই হয়েছে। গণমাধ্যমের খবর অনুযায়ী এবারও বিভিন্ন অঞ্চলে তরমুজের বাম্পার ফলন হয়েছে। কিন্তু মৌসুমের শুরু হতে না হতেই এবার রাজশাহীর বাজারে তরমুজে যেন আগুন লেগেছে। প্রতিকেজি তরমুজ বিক্রি হচ্ছে ৬০ টাকা কেজি দরে।

গত শুক্রবার থেকে এই দামে তরমুজ বিক্রি হচ্ছে। প্রয়োজনের তুলনায় তরমুজ বাজারে কম এনে সিন্ডিকেট তৈরী করে অতিরিক্ত দামে বিক্রি করা হচ্ছে বলে অভিযোগ করেছেন ক্রেতারা।

তবে তরমুজের রাজধানী বলে পরিচিতি পুটয়াখালির রাঙ্গাবালীর বাজারেও গত কয়েকদিন ধরে তরমুজের চরম সঙ্কট বিরাজ করছে বলেও খোঁজ নিয়ে জানা গেছে। যার কারণে রমজানের মাঝামাঝি সময়ে এসে আকাশচুম্বি হয়ে দাঁড়িয়ে তরমুজের দাম।
গতকাল রাজশাহীর সাহেববাজার, উপশহর নিউমার্কেট, লক্ষীপুর, সাগরপাড়াসহ বিভিন্ন বাজার ঘুরে দেখা গেছে প্রতিকেজি তরমুজ বিক্রি হচ্ছে ৬০ টাকা দরে।

তবে কোথাও কোথাও ৫৫ টাকাতেও বিক্রি হচ্ছে। অন্যদিকে বরিশালে খোঁজ নিয়ে জানা গেছে, প্রতিটি তরমুজ বিক্রি হচ্ছে ১০০ থেকে ১৫০ টাকা দামে। সেই হিসেবে প্রতিকেজি তরমুজ বিক্রি হচ্ছে ২০-২৫ টাকা দরে। কিন্তু সেই তরমুজ রাজশাহীর বাজারে বিক্রি হচ্ছে দ্বিগুন দামে।

রাজশাহীর উপশহর নিউমার্কেট এলাকার ব্যবসায়ী আকবর আলী বলেন, তরমুজ ঠিকমতো পাওয়া যাচ্ছে না। কিন্তু বাজারে রোজার কারণে তরমুজের চাহিদা ব্যাপক। চাহিদামতো না পাওয়ায় দাম বেড়ে গেছে দ্বিগুন হারে।’ তিনি আরও বলেন, ‘অন্যান্য বছরে এই সময়ে এতো দাম বৃদ্ধি কখনোই বৃদ্ধি পাইনি তরমুজের। এবার অতিরিক্ত খরার কারণে তরমুজের দাম ব্যাপক হারে বেড়েছে।’

অন্যদিকে গতকাল তরমুজের দাম নিয়ন্ত্রণে রাজশাহী জেলা প্রশাসনের পক্ষ থেকে নগরীতে অভিযান চালানো হয়। তবে কোনো ব্যবসায়ীর জরিমানা বা অন্য কোনো শাস্তি দেওয়া হয়নি। তাদের শুধুমাত্র সতর্ক করে দেওয়া হয়েছে। অভিযানের সময় কেজিপ্রতি তরমুজের দাম ৫ টাকা হারে কম বিক্রি করতে দেখা গেছে। তবে অভিযানের পরেই আবারও ৬০ টাকা কেজি দরে বিক্রি করতে দেখা যায়।

মন্তব্য করুনঃ

আপনার মন্তব্য করুন :