রাজশাহীতে দুই ভূয়া পুলিশ জনতার হাতে আটক

রাজশাহীতে দুই ভূয়া পুলিশ জনতার হাতে আটক

রাজশাহী

লিয়াকত হোসেন রাজশাহীঃ 

রাজশাহীতে ভুয়া পুলিশ পরিচয়ে নারীদের নিকট মাদক তল্লাসী করতে চেয়ে জনতার হাতে আটক হয়েছে দুই যুবক। আটককৃতরা হলেন চারঘাট উপজেলার খোর গবিন্দপুর গ্রামের মাহাবুর সরকারের ছেলে সোহান (২৫) এবং নগরীর সিপাইপাড়া এলাকার শরিফুল ইসলামের ছেলে সেলিম (২৪)। জনগণ তাদের তাদেরকে আটক করে নগরীর বোয়ালিয়া থানায় জমা দেই।

বোয়ালিয়া থানার পুলিশ জানান নগরীর হাদির মোড় এলাকায় দুই পুলিশ পরিচয়দানকারী যুবককে জনতার হাত থেকে তারা উদ্ধার করে নিয়ে আসেন তারা। সাহেব বাজারের ব্যবসায়ী বাপ্পি নামের আরেক যুবক তাদের বিরুদ্ধে অভিযোগ একই ধরনের অভিযোগ এনেছেন । 

অভিযোগে বলা হয়েছে, চারঘাট উপজেলার টাঙন এলাকা থেকে দুই নারী রিকশা যোগে রাজশাহীতে চিকিৎসার জন্য যাচ্ছিলেন। এসময় ঐ দুই যুবক পথ রোধ করে মাদক বহন করছেন বলে অভিযোগ আনেন। এসময় তারা বার বার ঐ দুই নারীকে রিক্সা থেকে নামিয়ে মাদক উদ্ধারের নামে তল্লাশী চালানোর চেষ্টা করেন।

এভাবে রাজশাহী আসার পথে রুয়েটের সমানে রিক্সা আসলে আবারও রিক্সা থামান সোহান ও সেলিম। পরে এ নারীরা তাদের স্বজনদের ফোন করলে যুবকরা পালিয়ে সাহেব বাজারের দিকে যেতে থাকে। স্থানীয়রা তাদের ধাওয়া দিয়ে হাদির মোড় এলাকায় আটক করে তাদের পরিচয় জানতে চায়। 

পুুলিশ কিনা তাদের চ্যালেঞ্জ করার পর পুলিশ হিসেবে পরিচয় দিতে ব্যর্থ হলে তাদের আটকে রেখে বোয়ালিয়া থানা পুলিশে খবর দেন জনগণ। পরে পুলিশ এসে ঐ দুই নারী ও অভিযুক্ত দুই যুবককে থানায় নিয়ে যান। এদিকে অপরাধীরা কাটাখালী থানার অন্তর্গত হওয়ায় আসামীদের সেই থানায় পৌছে দেয়া হয়।

কাটাখালি থানা বিষয়টি তদন্তের পর ব্যবস্থা গ্রহন করবে বলে জানিয়েছেন। এদিকে আটকদুই যুবকের একজন জানিয়েছেন, তারা একটি মাদক বিরোধী সংগঠনে কাজ করেন। এই দুই নারী মাদক পাচারকারী বলে নিশ্চিত করেছেন তারা। তাই তাদের তল্লাসী করা প্রয়োজন বোধ করছেন বলে জানান ঐ দুই যুবক। 

মন্তব্য করুনঃ

আপনার মন্তব্য করুন :