রাজশাহীতে বট-পাকুড়ের বিয়ে: আমন্ত্রিত অতিথি দেড় হাজার

রাজশাহীতে বট-পাকুড়ের বিয়ে: আমন্ত্রিত অতিথি দেড় হাজার

রাজশাহী

নিজেস্ব প্রতিবেদকঃ

মহাধূমধাম করে বিয়ের আয়োজন। কিন্তু মানুষের নয়, বট-পাকুড়ের। হিন্দুশাস্ত্র অনুযায়ী, বিয়ের সাজে সাজানো হয় বর-কনে। ১৭ বছর আগে বিয়ের দেয়ার উদ্দেশ্যেই রোপণ করা হয়েছিল এই গাছ দুটি।

প্রায় দেড় হাজার লোকের খাবারের ব্যবস্থার পাশপাশি ছিল গায়ে হলুদ, বাদ্য-বাজনাসহ হিন্দুশাস্ত্রমতে বিয়ের সব আয়োজন। শনিবার দিনব্যাপী রাজশাহীর খড়খড়ি বাইপাস এলাকার গোপালদেব ঠাকুর মন্দিরে জমজমাট এই বিয়ের আয়োজনে করা হয়। বিয়েকে কেন্দ্র করে সকাল থেকেই গোপালদেব ঠাকুর মন্দিরে বেজে ওঠে সানাইয়ের সুর, ঢাকাঢোলের বাজনা।

আয়োজকরা বলছেন, বট ও পাকুড় হিন্দুশাস্ত্রে পূজ্য বৃক্ষ। সে কারণে দেয়া হচ্ছে বট-পাকুড়ের বিয়ে। প্রথমে নারায়ণ পূজা-অর্চনার মধ্য দিয়ে শুরু হয় আচার-অনুষ্ঠান। দুপুরে অন্তত দেড় হাজার জন অতিথিকে আপ্যায়ন করা হয়। বট ও পাকুড়ের বিয়ে মানেই মঙ্গল। তাই মঙ্গল কামনায় ভক্তরা যোগ দিয়েছেন বিয়েতে। স্থানীয়রা চাঁদা তুলে যুগিয়েছেন খরচ। পবিত্র গীতাতেও বট-পাকুরের বিয়ের কথা উল্লেখ রয়েছে বলে জানালেন আয়োজকরা। পূর্বকাল থেকেই প্রচলিত এই ধরনের বিয়ে। 

বিয়ের অনুষ্ঠানটি সুষ্ঠুভাবে সম্পন্ন করতে সহায়তা করেছে স্থানীয় প্রশাসন। নিরাপত্তার দায়িত্বে ছিল পুলিশ। 

মন্তব্য করুনঃ

আপনার মন্তব্য করুন :