রাজশাহীর চোরাই মোটরসাইকেল বাঘায় উদ্ধারঃ গ্রেফতার ১

রাজশাহীর চোরাই মোটরসাইকেল বাঘায় উদ্ধারঃ গ্রেফতার ১

রাজশাহী

লিয়াকত রাজশাহী: 

আরএমপি’র সিসিটিভির ভিডিও ফুটেজ থেকে চোরকে সনাক্ত করে রাজশাহী বাঘা থানার হরিরামপুর এলাকায় অভিযান চালিয়ে একটি চোরাই মোটরসাইকেল উদ্ধারসহ চোর চক্রের এক সদস্যকে গ্রেফতার করেছে মতিহার থানা পুলিশ। আরএমপি’র পুলিশ কমিশনার মোঃ আবু কালাম সিদ্দিক এর নির্দেশনায় রাজশাহী নগরীতে অপরাধ প্রবণতা শূন্যের কোঠায় নামিয়ে আনতে মহানগরজুড়ে ক্লোজ সার্কিট (সিসি) ক্যামেরা স্থাপন করেছে রাজশাহী মেট্রোপলিটন পুলিশ। ধারাবাহিকভাবে এর ফল ভোগ করছে মহানগরবাসী।

বিভিন্ন স্থানের ভিডিও ফুটেজ পর্যবেক্ষণ করে দূর্ঘটনার কারণ, হারিয়ে যাওয়া মালামাল উদ্ধার, চুরি, ছিনতাইসহ অনেক সমস্যা দ্রুত সমাধান করছে আরএমপি। সর্বশেষ সফল্য মিলেছে মতিহার থানার চরশ্যামপুরে চোরাই মোটরসাইকেল উদ্ধার করে। সিসি টিভি ক্যামেরায় চুরির ঘটনায় ও চোর সনাক্ত হয়।

উক্ত চুরির ঘটনায় ১ জনকে গ্রেফতার করেছে মতিহার থানা ‍পুলিশ। গ্রেফতারকৃত আসামী মোঃ সালাউদ্দিন সজলের (৩০) কাছ থেকে চোরাই Runner Deluxe80-CC মোটরসাইকেল উদ্ধার করা হয়। ঘটনাসূত্রে জানা যায়, গত ২৯ মে ২০২১ দুপুর ২.১০ টায় মোঃ রুবেল আলীর ব্যবসায়ীক কাজ শেষ করে মতিহার থানার চরশ্যামপুর তার বাড়ির সিড়ি ঘরের নিচে Runner Deluxe80-CC মোটরসাইকেল লক করে রেখে বাড়ির ভেতরে যায়।

এরপর ঘটনার দিন সন্ধ্যা ৬ টায় সে ব্যবসায়িক কাজে বাড়ি থেকে পুনরায় বেড় হয়ে দেখে সিড়ি ঘরের নিচে রাখা মোটরসাইকেলটি নাই। মোটরসাইকেলটি সেখানে না পেয়ে সে আশপাশ বিভিন্ন জায়গায় অনেক খোঁজাখুঁজি করেন। খোঁজাখুঁজি করে কোথাও না পেয়ে বুঝতে পারেন যে, তার মোটরসাইকেলটি অজ্ঞাতনামা চোরেরা চুরি করে নিয়ে গেছে। পরবর্তীতে সে মতিহার থানায় একটি চুরির মামলা করে।

উক্ত চুরির মামলায় উপ-পুলিশ কমিশনার(মতিহার) বিভূতি ভূয়ণ বানার্জী চোরাই মোটরসাইকেল উদ্ধার ও আসামী গ্রেফতারের নির্দেশ প্রদান করেন। অফিসার ইনচার্জ মোঃ এএসএম সিদ্দিকুর রহামানের তত্বাবধানে মামলা তদন্তকারী কর্মকর্তা এসআই মোঃ শাহাবুল ইসলাম আরএমপি’র সিসি ক্যামেরার ফুটেজ পর্যালোচনা করে চোর মোঃ সালাউদ্দিন সজলকে সনাক্ত করেন । পরবর্তীতে এসআই মোঃ শাহাবুল ইসলাম গোপন সংবাদের ভিত্তিতে অভিযান পরিচালনা করে ধরমপুর এলাকা থেকে সজলকে তার নিজ বাড়ি থেকে গ্রেফতার করেন।

প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে গ্রেফতারকৃত আসামী সজল মোটরসাইকেল চুরির কথা স্বীকার করে এবং তার দেওয়া তথ্য মতে রাজশাহীর বাঘা থানার হরিরামপুর এলাকার মোঃ আব্দুস সালামের বাড়ি হতে চুরি যাওয়া মোটরসাইকেল উদ্ধার করা হয়। উল্লেখ্য, আসামী সজলের বিরুদ্ধে মতিহার ও মোহনপুর থানায় ৬ টি মামলা রয়েছে।
আসামী সজলের বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা গ্রহণ করা হয়েছে।

মন্তব্য করুনঃ

আপনার মন্তব্য করুন :