সিরাজগঞ্জে ৪ দিনের ব্যবধানে আবারও শিশু চুরি

সিরাজগঞ্জে ৪ দিনের ব্যবধানে আবারও শিশু চুরি

রাজশাহী

অনলাইন ডেক্সঃ

সিরাজগঞ্জে ৪ দিনের ব্যবধানে আবারও শিশু চুরির ঘটনা ঘটেছে। শনিবার বিকেলে উল্লাপাড়ার হাটিকুমরুলের সাখাওয়াত এইচ মেমোরিয়াল হাসপাতাল থেকে সদ্য ভূমিষ্ঠ শিশু চুরি হয়েছে।

সিসি ক্যামেরার ফুটেজ দেখে শিশুটিকে উদ্ধারের চেষ্টা চালাচ্ছে পুলিশ। নবজাতককে উদ্ধার ও জড়িতদের দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির দাবি জানিয়েছে হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ।

১২ বছর পর পুত্র সন্তানের মা হন সিরাজগঞ্জের তাড়াশ উপজেলার নওগাঁর মাজেদের স্ত্রী সবিতা। তবে সেই আনন্দ এখন বিষাদে পরিণত। সন্তান চুরির শোকে কাতর মাজেদ-সবিতা দম্পতি।

শনিবার সকালে সিজারের মাধ্যমে জন্ম নেয়া নবজাতককে তার নানীর কোলে তুলে দেয়া হয়। শিশুটির কান্না থামাতে অপরিচিত এক নারী তাকে কোলে নেয়। বিকেলে নবজাতকের মা অসুস্থ হয়ে পড়েছে জানিয়ে শিশুর নানীকে কেবিনে পাঠিয়ে দেন ওই নারী। পরে নবজাতককে নিয়ে পালিয়ে যান তিনি।

শিশুটির নানি জানান,’আমাকে বলে তোমার বেটি অসুস্থ। আমি বলি আমার জামাই আছে। আমি ঘুরে এসেই দেখি নাই।’ শিশুটির বাবা বলেন,’সাড়ে নয়টার দিকে বাচ্চা হয়েছে। আমার কোলে দিয়েছে। আমার শাশুড়ির কোলে দিছি। আরেক মহিলার কোলে দিছি। যাকে চিনি না। এরপর সাড়ে তিনটার দিকে বাচ্চা নাই।’

শিশু চুরির ঘটনায় জড়িতদের আইনের আওতায় আনার দাবি হাসপাতাল কর্তৃপক্ষের।  আর পুলিশ বলছে, শিশুটিকে উদ্ধারের অভিযান চলছে।  সিরাজগঞ্জ সাখাওয়াত এইচ মেমোরিয়াল হাসপাতালের পরিচালক ডা. রবিউল ইসলাম বলেন,’সিসিটিভি ফুটেজ দেখে যেটা দেখা গেলো স্বজনদের মধ্যেই একজন তার সঙ্গে কথা বলছেন। পরবর্তিতে ওই মহিলাই বাচ্চাটি নিয়ে চলে গেল। এটার সুষ্ঠু তদন্ত হোক। প্রকৃত দোষীর শাস্তি দাবি করছি।’

সিরাজগঞ্জ সলঙ্গা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা আব্দুল কাদের জিলানী জানান,’বাচ্চাটিকে উদ্ধারের চেষ্টা চলছে।’

গত ২৩শে ফেব্রুয়ারি সিরাজগঞ্জ জেনারেল হাসপাতাল থেকে ২৩ দিন বয়সী শিশু চুরির ঘটনা ঘটে। এখনো উদ্ধার হয়নি ঐ শিশুটি। এর মধ্যে আবারও চুরি হলো সদ্য ভূমিষ্ট সামিউল।

মন্তব্য করুনঃ

আপনার মন্তব্য করুন :